ইউকের ত্রাণ প্রতিনিধিদলের মতবিনিময় সভা

0
12

1হোসাইন আল-মাদানী,

সিলেট প্রতিনিধি,     

সময় সংবাদ বিডি–ঢাকা: বাংলাদেশ মানবাধিকার ব্যুরো (বিএইচআরবি) সিলেট বিভাগীয় চাপ্টারের উদ্যোগে, যুক্তরাজ্য ভিত্তিক মানবসেবামূলক সংস্থা ‘আখি এব্রোড’ ইউকের ত্রাণ প্রতিনিধিদলের সাথে গত বুধবার সন্ধ্যায় এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। এতে সঞ্চালকের ভূমিকায় ছিলেন আবু তালেব মুরাদ (বাংলা টিভির সিলেট ব্যুরো চিফ)। উক্ত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন মুহাম্মদ ফয়জুর রহমানের (বিএইচআরবি সিলেট বিভাগীয় সভাপতি ও দৈনিক সিলেট সংলাপ পত্রিকার সম্পাদক)।

প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী (সিলেট সিটি কর্পোরেশন)। বিশেষ অতিথির হিসেবে প্রফেসর ড. আব্দুল আউয়াল বিশ্বাস (শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, নৃবিজ্ঞান বিভাগ), এডভোকেট মোহাম্মদ লালা (সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি), ইকরামুল কবির (সিলেট প্রেসক্লাব সভাপতি) ও বদরুল ইসলাম শোয়েব (রেজিস্ট্রার, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়) এবং ইকবাল হোসেইন (বাংলাদেশী টিচার্স এসোসিয়েশন ইন ইউকে’র সাবেক জেনারেল সেক্রেটারি, কমিউনিটি সংগঠক)। প্রথমে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন, মোসাম্মাৎ বদরুননেসা (প্রিন্সিপাল, ক্যাপ্টেন একাডেমি সিলেট), সেনেওয়ারা আক্তার ( প্রিন্সিপাল, সিলেট সিটি স্কুল এন্ড কলেজ) ও সৈয়দ সুজাত আলী (নির্বাহী সম্পাদক, দৈনিক কাজির বাজার পত্রিকা)। উক্ত মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন, মোহাম্মদ মামুন হোসেইন (প্রতিষ্ঠাতা, আখি এব্রোড’ ইউকে’র) এবং জানান তাদের প্রধান উদ্দ্যেশ, অসহায়, নির্যাতিত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর পাশে সামর্থ্য অনুযায়ী পাশে দাঁড়ানোর কথা এবং স্থানীয় পরিচিত ব্যক্তিবর্গের প্রয়োজনীয় সহযোগীতা কামনার কথা।

2প্রফেসর ড. আব্দুল আউয়াল বিশ্বাস বিশেষ অতিথির বক্তব্য প্রথমনেই যক্তরাজ্যে উনার সফর কালে সিলেটী প্রবাসীদের আত্মিয়তা ও সম্মানের কথা, একি সাথে বুহুশি প্রশংসাও করেন। রোহিঙ্গা ইস্যুতে তিনি বলেন, যারা নিজ দেশের নাগরিকদের নির্বিচারে হত্যা করে, বসতবাড়ি পুড়িয়ে দেয়, দেশে ছাড়তে বাধ্য করে, এরা কি মানুষ? এটা কি ধরনের সরকার? তিনি রোহিঙ্গাদের উপর এ নির্যাতনে গণহত্যার সাথে তুলনা করেন এবং বলেন ওরা ( মায়ানমার সরকার) এখানেই থেমে নেই, গুংরা, গুংসা উপজাতিদের সাথেও খারাপ আচরণ করছে। তিনি নৃবিজ্ঞানের ব্যাখ্যা থেকে জোরেশোরে বলেন, ‘এরা মায়ানমারেরই নাগরিক’। সভা থেকে তিনি জোর দাবী জানান, ‘ঐ নির্বোধ সরকারে উচিত তাদের নাগরিকদের মর্যাদার সাথে নিজ দেশে ফিরিয়ে নেওয়া’।

প্রধান অতিথি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী তার বক্তব্যে প্রথমেই বলেন, যুক্তরাজ্য প্রবাসীদের সাথে সুসম্পর্ক ও সহযোগীতার কথা। তিনি বলেন, আমাদের মহান মুক্তিযুদ্ধেও তারা নানান ভাবে সহায়তা করেছিলেন। আর আজ অসহায় রোহিঙ্গাদের পাশে এসে দাঁড়াতে চাচ্ছেন, রোহিঙ্গাদের সহয়তা করতে চাচ্ছেন, আমরা আপনাদের পাশে আছি এবং প্রয়োজনীয় সকল রকমের সহযোগীতা অব্যাহত রাখবেন বলে তিনি জানান, এবং একি সাথে ধন্যবাদ ও শ্রদ্ধা জ্ঞীয়াপন করেন। রোহিঙ্গা ইস্যুতে তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক রাজনীতির বলির শিকার আজ রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী। এ সমস্যা সমাধানে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক মহলের সাথে কাজ করতে হবে সরকারকে আন্তরিকতার সাথে। বিশাল এ জনগোষ্ঠী আমাদের মাথার বুজা হয়েই দাঁড়িয়ে যাবে, যদি না আমরা খুব তাড়াতাড়ি তা সমাধানের সহজ পথ খুঁজে না বের করতে পারি। সভায় তিনি যুক্তরাজ্য প্রবাসীদের দিয়ে আসা ব্রিকলেন রোডের আদলে সিলেটেও একটি রোড নির্মাণের প্রতিশ্রুতি, তা এখন মন্ত্রী সভায় অনুমোদনের অপেক্ষায় আছে বলে জানান। সিলেটীবাসীর প্রাণের দাবী সিলেট ভবন নির্মাণের জায়গা বরাদ্দ পেলেই তিনি কাজ শুরু করবেন বলেও জানান উক্ত মতবিনিময় সভায়। এয়ারপোর্ট সংলগ্নে প্রবাসীদের স্বাগতম জানিয়ে একটি বোর্ড নির্মাণের কাজ প্রক্রিয়াদিন আছে এবং খুব শীঘ্রই এর কাজ শুরু করতে পারবেন বলেও জানান তিনি। সভাপতি উনার বক্তব্যে সবার সাথে একাত্মতা পোষণ করেন এবং আখি এব্রোড’ ইউকে সর্বাত্মক সহযোগী প্রদানের কথা পূর্ণব্যক্ত করেন। নৈশ্য ভোজের মধ্যে দিয়ে উক্ত সভার আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়।

Print Friendly, PDF & Email