বৃহস্পতিবার , ১৭ অগাষ্ট ২০১৭
ব্রেকিং নিউজ

বগুড়ায় ছাত্রীকে ধর্ষণের ‘আলামত মিলেছে’

বগুড়ার ছাত্রীকে ধর্ষণের আলামত মিলেছেসময় সংবাদ বিডি,বগুড়া:-বগুড়ায় শ্রমিক লীগের আহ্বায়ক তুফানের হাতে নির্যাতনের শিকার ছাত্রীকে ধর্ষণের আলামত মিলেছে ডাক্তারি পরীক্ষায়। শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক মেডিসিন বিভাগ থেকে এই ডাক্তারি পরীক্ষার প্রতিবেদন ইতিমধ্যেই মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা হাতে পেয়েছেন।

আজ ৪ আগস্ট সকালে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও বগুড়া সদর থানার পরিদর্শক (অপারেশন) আবুল কালাম আজাদ বলেন, চিকিৎসকদের দেওয়া প্রতিবেদনে মেয়েটিকে ধর্ষণের আলামত মিলেছে। মেয়েটি প্রাপ্তবয়স্ক নয় বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।

আবুল কালাম আজাদ আরও বলেন, মামলার প্রধান আসামি তুফান সরকার, তার বড়বোন মার্জিয়া আকতার এবং সহযোগী মুন্নার দ্বিতীয়দফা রিমান্ড শেষে আজ আদালতে হাজির করা হচ্ছে। এ মামলায় ইতিমধ্যে তুফানের সহযোগী আতিক এবং ক্ষৌরকার ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন।

গত ১৭ জুলাই তুফান সরকার তার বাহিনীর সদস্যদের দিয়ে ওই ছাত্রীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে নিজ বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে ধর্ষণ করে। তুফানকে বাঁচাতে তার স্ত্রী আশা, তার বোন কাউন্সিলর রুমকি ও মা রুমা গত ২৮ জুলাই ছাত্রী ও তার মাকে রুমকির বাড়িতে ধরে নিয়ে যায়।

সেখানে মা ও মেয়ের ওপর চালানো হয় বর্বর নির্যাতন। এরপর কাঁচি দিয়ে দু’জনের চুল কেটে দেয়া হয়েছিল। পরে নাপিত ডেকে তাদের মাথা ন্যাড়া করে দেয়া হয়। এ ঘটনায় ছাত্রীর মা ২৯ জুলাই সদর থানায় তুফান, রুমকি, আশা, রুমা, ১০ জনের বিরুদ্ধে দুটি মামলা করেন। পুলিশ ইতিমধ্যে এজাহার নামীও ৯ জনসহ ১১ জনকে গ্রেফতার করেছে। এক আসামি এখনও পলাতক রয়েছে।

Print Friendly