লিটন হত্যার দায় স্বীকার কাদেরের

0
221

kader-khan 1সময় সংবাদ বিডি,গাইবান্ধা:-গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য মনজুরুল ইসলাম লিটন হত্যায় ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন দিয়েছেন ওই আসনের সাবেক এমপি আবদুল কাদের খান।

জবানবন্দিতে কাদের লিটন হত্যার পরিকল্পনা, প্রশিক্ষণ ও বাস্তবায়ন সম্পর্কে বিস্তারিত বিবরণ দেন। তিনি বলেন, হত্যা মিশনে অর্থায়ন ও অস্ত্র সরবরাহ তিনি একাই করেন। পারিবারিক দ্বন্দ্ব নয়, ক্ষমতার লোভেই লিটনকে হত্যা করা হয়। এমপি হতে না পেরে প্রতিহিংসার বশবর্তী হয়েই এই হত্যার পরিকল্পনা করেন কাদের। আর্থিক সহায়তা ও উন্নত জীবনের প্রলোভন দেখিয়ে হত্যাকারীদের প্ররোচিত করা হয়েছিল।

শনিবার বিকাল সাড়ে ৩টার পর থেকে রাত সাড়ে ৯টা পর্যন্ত গাইবান্ধার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম জয়নাল আবেদিন তার জবানবন্দি গ্রহণ করেন। আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে লিটন হত্যা মামলায় অভিযোগপত্র দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন পুলিশ কর্মকর্তা আহমেদ বশির।

লিটন হত্যা মামলায় গত মঙ্গলবার বগুড়া শহরের রহমাননগর জিলাদারপাড়ার বাসা থেকে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য আবদুল কাদের খানকে প্রেপ্তার করে পুলিশ। পরদিন জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তার ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদালত।

কাদের খানের গাড়িচালক আবদুল হান্নান, বাসার তত্ত্বাবধায়ক শাহিন মিয়া ও মেহেদী ইতিমধ্যেই আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য লিটনকে গত ৩১ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় সুন্দরগঞ্জ উপজেলার সর্বানন্দ ইউনিয়নের উত্তর শাহাবাজ গ্রামে তার বাড়িতে গুলি করে হত্যাস করা হয়। এ আসনে উপনির্বাচন হওয়ার কথা আগামী ২২ মার্চ। কাদের খান উপনির্বাচনে জাতীয় পার্টির মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেও শেষ পর্যন্ত জমা দেননি।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here