গাজীপুরে ভাড়াটিয়া সেজে শিশু অপহরণ ৭ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি

0


জাহাঙ্গীর আকন্দ: টঙ্গী প্রতিনিধি,সময় সংবাদ বিডি- ঢাকা: অপহরণের পর ৭ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি “তৎপর’ পুলিশের অভিযানে শিশুটিকে শিবচরে থেকে উদ্ধার। এমনই এক ঘটনা ঘটেছে গাজীপুরে ভাড়াটিয়া সেজে শিশু অহপণের দু’দিন পর মাদরীপুরের শিবচর থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। উদ্ধারকৃত শিশুটি গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের গাছা মধ্যপাড়া এলাকার আব্দুল কাদেরের ছেলে আব্দুল্লাহ (৫)।

গত শুক্রবার সকালে মেট্রোপলিটন গাছা থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে শিশুটিকে এই উদ্ধার করে। অপহৃত শিশুটির মা সাজেদা আক্তার সময় সংবাদ বিডির প্রতিনিধিকে জানান,তার স্বামী আব্দুল কাদের গ্রীস প্রবাসী হওয়ায় ছেলে আব্দুল্লাকে নিয়ে ঘরে তিনি একাই থাকতেন। বাড়িতে কয়েকটি ঘরে ভাড়াটিয়া থাকলেও একটি ঘর খালি ছিলো।

গত ৭ জুলাই মঙ্গলবার দুপুরে এক অজ্ঞাত মহিলা ঘর ভাড়া নেয়া জন্য আসে,এর পর ( ২০০০) হাজার টাকায় সে ঘরটি ভাড়া নেয়। পরের দিন বুধবার দুপুর ১২টার দিকে ওই অজ্ঞাত ভাড়াটিয়া মহিলা সাজেদার ছেলে আব্দুল্লাকে কোলে নিয়ে কিছু কিনে দেয়ার কথা বলে বাসা থেকে বের হয়।

সেই দিন, যথা সময়ে অজ্ঞাত ওই মহিলা ছেলেকে নিয়ে বাসায় না ফেরায় সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজা-খুঁজির এক পর্যায়ে ভিকটিমের মা সাজেদার মোবাইলে একটি ফোন আসে। ফোনে অজ্ঞাত ওই মহিলা শিশু আব্দুল্লাহকে অপহণের কথা জানায় এবং মুক্তিপণ বাবদ ৭ লাখ টাকা দাবি করে। এবং হওয়ার এই ঘটনা অপহরণের বিষটি পুলিশকে জানালে শিশু আব্দুল্লাহকে খুন করে লাশ গুম করার হুমকি দেয়।

এই বিষয়ে,গাজীপুর মেট্রোপলিটন গাছা থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মালেক খসরু খান,সময় সংবাদ বিডিকে জানান, অপহরণের ঘটনার পর বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানো হয়। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমার জানতে পারেন শিশুটিসহ অহপরণকারীরা মাদারীপুর জেলায় অবস্থান করছে।

এর পর আমার,শুক্রবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে মাদারীপুর জেলার শিবচর এলাকায় এসআই উদয়ন বিকাশ বড়–য়া, এএসআই তরুন কুমার দাস, এএসআই মাহমুদুল হাসানসহ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান চালানো হয়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে শিবচরের কাঠালিয়া ঘাট এলাকায় রাস্তায় শিশু আব্দুল্লাহকে ছেড়ে অপহরণকারীরা পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় শিশু আব্দুল্লার মা সাজেদা আক্তার বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন। অপহরণকারীদের ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত আছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here