বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী আজ

0


সময় সংবাদ বিডি -ঢাকা: আজ ১৭ মার্চ। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শততম জন্মবার্ষিকী। যথাযোগ্য মর্যাদায় মঙ্গলবার সারা দেশে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন করা হবে। এই দিন সরকারি ছুটির দিন।

সম্প্রতি ১৯২০ সালের এই দিনে রাত আটটায় টুঙ্গিপাড়ায় জন্মগ্রহণ করেন শেখ পরিবারের আদরের ‘খোকা’। যিনি ধীরে ধীরে হয়ে উঠেছিলেন বাঙালির ‘মুজিব ভাই’ এবং ‘বঙ্গবন্ধু’। তাঁর হাত ধরেই আসে বাঙালির স্বাধীনতা, জন্ম নেয় বাংলাদেশ। ৫৫ বছর বয়সে কিছু বিপথগামী সেনা কেড়ে নেন তাঁর প্রাণ। কিন্তু দেশের প্রতিটি কোনায় কোনায় আজ উচ্চারিত হচ্ছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাম। আজ শততম জন্মদিনে তাঁর জন্মক্ষণ রাত আটটায় সারা দেশে উৎসবের ফোয়ারা ছোটাবে আতশবাজির ঝলকানি।

যদি রাত পোহালে শোনা যেত,বঙ্গবন্ধু মরে নাই…। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মৃত্যু কিংবা জন্মবার্ষিকীতে এ গানটি বাজানো হয় অবধারিতভাবেই। আজও সারা দেশে তা শোনা যাবে। এই গানের আকুতির মতোই সত্যিই যদি বঙ্গবন্ধু মারা না যেতেন,তাহলে আজ শতবর্ষী হতেন তিনি। জনতার নেতা মুজিব না থাকলেও তাঁর আদর্শ ও অনুপ্রেরণা আজও বাঙালির মননে গেঁথে আছে। শ্রদ্ধায়,ভালোবাসায়, কৃতজ্ঞচিত্তে আজ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্মরণ করবে বাঙালি।

বঙ্গবন্ধুরজন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে সরকার ২০২০ সালের ১৭ মার্চ থেকে ২০২১ সালের ২৬ মার্চ পর্যন্ত সময়কে মুজিব বর্ষ হিসেবে ঘোষণা করে। বাংলাদেশের পাশাপাশি ইউনেসকোর উদ্যোগে বিশ্বব্যাপী মুজিব বর্ষ উদযাপিত হচ্ছে।

জন্মশতবার্ষিকী পালনে সরকার জমকালো উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পাশাপাশি বছরব্যাপী নানা কর্মসূচি হাতে নেয়। কিন্তু বাংলাদেশে করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়ায় এসময় কর্মসূচির সময় পরিবর্তন করা হয়েছে। জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডে মঙ্গলবার যে বিশাল উদ্বোধনী অনুষ্ঠান করার কথা ছিল তা স্থগিত হয়েছে এবং এটি পরে আয়োজন করা হবে। মঙ্গলবার উদযাপন শুরু হবে রাত ৮টায়। এ সময় সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আয়োজিত হবে আতশবাজির প্রদর্শনী।

এদিকে দিবসটি পালনে আওয়ামী লীগ বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। সকালে থেকে সারা দেশে সব দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে। রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সকালে টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করবেন।

এছাড়া,দেশের সব মসজিদ,মন্দির ও গির্জায় বিশেষ প্রার্থনার আয়োজন করা হবে। রেডিও ও টেলিভিশন চ্যানেলগুলোতে প্রচার করা হবে বিশেষ অনুষ্ঠানমালা। রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দিবসটি উপলক্ষে পৃথক বাণী দিয়েছেন।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সম্প্রতি ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কাল রাতে একদল সেনা সদস্যের হাতে নিহত হন। গতিশীল নেতৃত্ব পাকিস্তানি শাসকদের শোষণ ও নিপীড়নের বিরুদ্ধে বাঙালি জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করেছিল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তার নির্দেশনায় দীর্ঘ ৯ মাস মুক্তিযুদ্ধের পর বাংলাদেশ স্বাধীন হয়।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে সময় সংবাদ বিডির পরিবারের পক্ষ থেকে রইলো বিনম্র শ্রদ্ধা। চির অমর হয়ে থাকবে বাঙালির বুকে আজীবন এই স্বাধীনতার ঘোষক,জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান,বাংলার স্বাধীনতা এনেছেন তিনি।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here